সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ১০:০১ অপরাহ্ন

মানুষ জেগে থাকে অন্যের জন্যে – ফখরুল আলম অপু

মানুষ জেগে থাকে অন্যের জন্যে – ফখরুল আলম অপু

সকাল একটি সুন্দর শিশুর মত। দুপুর যেন এক টগবগে যুবক। বিকেল হলো এক মধ্যবয়সী মানুষ, আর রাত বয়সের ভারে নুয়ে পরা কেউ। মানুষ ঘুমায় নিজের জন্যে আর জেগে থাকে অন্যের জন্যে। আজ এই মুহূর্ত কিন্তু কাল আসতে নাও পারে। প্রাণ খুলে হাসুন, হাসান, বাঁচুন নিজের মতো করে। 🤣🤣

ভদ্রতা কোন দূর্বলতা নয়! ভদ্রতা হলো “মা-বাবার” থেকে পাওয়া আদর্শের শিক্ষা।

খালি চোখে দেখা একরকম, দূর থেকে দেখা আরেক রকম, কাছে থেকে দেখা সম্পূর্ণ অন্যরকম। 🦋🦋

প্রয়োজন আর লোভকে একরকম ভাবা কিন্তু বিরাট ভুল। অপছন্দ আর হিংসার মধ্যে অনেক বড়ো তফাৎ, যারা অপছন্দ করে তারা কখনো আপনার ধারে কাছেই ঘেঁষবে না, কিন্তু যারা হিংসা করে তারা পাশাপাশি দাঁড়িয়েও চরম সর্বনাশ চাইবে … 💥

শিশিরের কনাতেও বন্যা হতে পারে, যদি তা পিঁপড়ার গর্ত হয়… 🐜🐜🐜

অজুহাত নামক অদৃশ্য হাত আপনাকে জয়ী হতে বাধা দিবেই। যে আপনার খুশির জন্যে হার মেনে নেয়, তার কাছে আপনি কখনোই জিততে পারবেনা। “মনুষ্যত্ব” পৃথিবীর সবচেয়ে বড় সম্পর্ক। 😍🥰🥰🥰🥰

বয়সের সাথে কখনও ম্যাচিউরিটি আসে না, ম্যাচিউরিটি আসে সিচুয়েশানের সাথে 😊 কথা বলার সময় অনেকবার ভেবে নেয়া উচিৎ।

এমন একটা বয়সে চলে আসছি যখন কেউ কোনো অনুষ্ঠানে দাওয়াত না দিলে তার প্রতি অভিমান/ কষ্টের চাইতে কৃতজ্ঞতাবোধ চলে আসছে। এই যে আরেকটা জনসমাবেশে যেয়ে লৌকিকতা টিকিয়ে রাখার যে অনাবশ্যক চেষ্টা তা থেকে মুক্তি দেওয়ার জন্যে এই কৃতজ্ঞতাবোধ! কাউকে নেহায়েত ফোন করা লাগলে সে যদি ফোন না ধরে তাহলে মনে হয় বেঁচে গেলাম। অযথা আড়ম্বরপূর্ণ কিছু আলাপচারিতা থেকে বাঁচা গেলো। এই বয়সে কোলাহলের উন্মত্ততা আর টানেনা। কেউ অবজ্ঞা করলেও গায়ে লাগেনা। বরং ভালো লাগে এই ভেবে যে কেউ অবজ্ঞা করে শান্তি পেলে আমিও খুশি! হয়তো বয়স বেড়ে যাচ্ছে, এটা তার লক্ষণ। লক্ষণ যেটারই হোক অহেতুক মানুষের সাথে না জড়ানোর এই ইচ্ছাটাকে ভালই লাগে। কিছু ক্ষেত্রে একাকিত্ব সুন্দর। নীরবতা আরামদায়ক। ধন্যবাদ সেই ‘ফ্রেন্ড’ টা কে, যে বিশ্বাস ভেঙ্গে দিয়ে চলে গেছে। ধন্যবাদ সেই ‘প্রিয় মানুষ’ টা-কে, যে একা করে দিয়ে চলে গেছে৷ ধন্যবাদ লাইফে এসে আবার চলে যাওয়া প্রত্যেকটা মানুষকে, যারা নানান কিছু শিখিয়ে দিয়ে গেছে! আপনারা এমন না করলে অনেক কিছুই শিখা হতো না, এই জায়গাতেও আসতে পারতাম না! কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করা উচিত আমাদের, চলে গিয়ে ভালোই করেছেন। ভালো থাকবেন আপনারা! যে যত বেশি একা সে তত বেশি গীবত মুক্ত, আলহামদুলিল্লাহ। গীবত ছেড়ে দিন, অন্যের দোষ খোঁজা ছেড়ে দিন, অন্যের সমালোচনা করা ছেড়ে দিন তখন ছোট্ট আমলও আপনার অনেক কাজে আসবে, ইন শা আল্লাহ 💗 আল্লাহ বলেন, “অবশ্যই তুমি পাবে যা তোমার থেকে হারিয়ে গেছে তার চেয়েও উত্তম কিছু।” -সূরা আনফাল-৭০। 💚

—❝সূর্যাস্ত কি প্রমাণ দেয় না? শেষটাও সুন্দর হয়? মনে রাখবেন, আল্লাহ কখনোই আমাদের থেকে কোনো জিনিস কেড়ে নেন না, যতক্ষন না আমাদের জন্যে হারানো সেই বস্তু কিংবা ব্যক্তির চাইতে উত্তম জিনিস ফয়সালা করেন, ইনশাআল্লাহ!❞💙✨___তাই সবর করুন, ধৈর্য ধরুন।🌸 ❝নিশ্চয় আল্লাহ ধৈর্যশীলদের সাথে আছেন❞💜🌾❤📖[সূরা বাকারা : ১৫৩]📖❤ আল্লাহ সুবহানাহু ওয়াতাআ’লা যেন আমাদের সবাইকে যেকোন পরিস্থিতিতে ধৈর্য ধারণের তৌফিক দান করেন, আমিন!

وَمَنْ أَعْرَضَ عَن ذِكْرِي فَإِنَّ لَهُ مَعِيشَةً ضَنكًا وَنَحْشُرُهُ يَوْمَ الْقِيَامَةِ أَعْمَى
এবং যে আমার স্মরণ থেকে মুখ ফিরিয়ে নেবে, তার জীবিকা সংকীর্ণ হবে এবং আমি তাকে কেয়ামতের দিন অন্ধ অবস্থায় উত্থিত করব। [সূরা ত্বা-হা – ২০:১২৪]

গুনাহের স্বাদ কিছুক্ষণের মধ্যেই শেষ হয়ে যাবে, কিন্তু এর কুপ্রভাব, যন্ত্রণা, অনুশোচনা ও হতাশা আপনাকে গোটা জীবন জুড়ে বয়ে বেড়াতে হবে। শয়তান আপনাকে যন্ত্রণা ও হতাশার বেড়াজালে জড়িয়ে ফেলতে চায়। গুনাহ ছাড়ুন, আল্লাহর একান্ত স্মরণে কিছুটা সময় কাটান। এর ফলে আপনি গুনাহের চেয়ে অনেক বেশী স্বাদ অনুভব করবেন।

নিজের চরিত্রকে বাগানের মত তৈরি করবেন না- যাতে সেখানে সবাই হাঁটতে পারে! বরং আপনার চরিত্রকে আকাশের মত তৈরি করুন- যাতে সবাই সেখানে পৌঁছানোর স্বপ্ন দেখে! আমরা আল্লাহ্‌র ইবাদাত না করে ভাবি স্বাভাবিক জীবন কেটে যাচ্ছে – আল্লাহ্‌ কিছু মনে করছেন না। বনী ইসরাইলের এক সাধু বলেছিলেন: হে আল্লাহ্‌! কতই তো আপনার অবাধ্য হই, আপনি তো কিছু করেন না। আল্লাহ্‌ তাদের নবীকে বললেন: তাকে বলো, “কত শাস্তি তোমাকে আমি দিই, তুমি টেরও পাও না। আমার কাছে হাত তুলে মাফ চাওয়ার ক্ষমতা কি আমি তোমার থেকে কেড়ে নিইনি?” হায়রে অভাগা।

অধৈর্য মানুষ কাংক্ষিত সফলতা অর্জন করতে পারে না। ❝ধ্বংসশীলদের ধ্বংস হওয়ার প্রধানতম কারণ হলো অবৈধ আকর্ষিত জিনিসের ক্ষেত্রে ধৈর্যের স্বল্পতা।❞

যে ব্যক্তি বেশি বেশি দরজায় করাঘাত করে, তার জন্যে দরজা খোলার সম্ভাবনা বেশি থাকে। তেমনি যে ব্যক্তি বেশি বেশি দোয়া করে, তার দোয়া কবুল হওয়ার সম্ভাবনাও বেশি থাকে। টেনশন করবেন না আল্লাহ তাআলা কারো না কারো উছিলায় আপনার বিপদ আপদ দূর করে দিবেন। সাধারণ জীবন যাপন করুন। অল্পতে সন্তুষ্ট থাকুন। বেশি বেশি ইস্তেগফার পাঠ করুন। দেখবেন জীবন অনেক সুন্দর হবে। ইনশাআল্লাহ। One day all Halal dreams of everyone comes true.
[ان شاء اللہ]🌸

গরুর মাংস খাচ্ছেন ঠিক আছে, কিন্তু হাড্ডি থেকে সাবধান! পারলে মাছ আর শাক সব্জিতে ফিরে আসুন, এতে আপনারই মঙ্গল।

মন খুব ভালো থাকলে কারো সাথে শেয়ার করার জায়গায় নিজে উপভোগ করুন। বলা যায় না কার নজর লেগে যায়😂😂 মন খুলে কথা বলার সময় সবচেয়ে বেশী সাবধানতা অবলম্বন করতে হয়। বানিয়ে বানিয়ে গল্প বলা মানুষগুলো ভুলেই যায় মিথ্যে কি জিনিস!

যারা পেছনে সমালোচনা করে তাদেরকে পেছনেই থাকতে দেন, তারা সামনে আসার যোগ্যতা রাখেনা।

এই সংবাদটি শেয়ার করুনঃ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




themesbazar_brekingnews1*5k
© All rights reserved © 2020
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: Jp Host BD